‘রোবটিক্স’(Robotics) শব্দটি অনেকের কাছে আগ্রহের বিষয় । এমন অজানা আর আগ্রহের একটি বিষয় হচ্ছে এই রোবটিক্স বা রোবট নামক যন্ত্রের বিজ্ঞান ।

প্রযুক্তির একটি শাখা যোখানে রোবটের নকশা, নির্মাণ,কার্যক্রম ও প্রয়োগ নিয়ে কাজ করেরোবটিক্স কী ? ( What is Robotics)

রোবটিক্স শব্দটি ‘রোবট’(Robot) এবং ‘ইক্স’(ics) ।এই ‘ইক্স’ শব্দটির সাথে আমরা সবাই কম বেশি পরিচিত । যেমন-ইলেক্ট্রনিক্স,ইলেক্ট্রিক্যাল,মেকানিক্স ইত্যাদি । সহজ ভাবে বলতে গেলে কম্পিউটার নিয়ন্ত্রিত স্বয়ংক্রিয় যন্ত্র ডিজাইন ও উৎপাদন সংক্রান্ত বিজ্ঞাইন হলো রোবটিক্স।

সোজা কথায় বললে রোবটিক্স হলো  । রোবটিক্স হচ্ছে এই একাবিংশ শতাব্দীর বিজ্ঞানের একটি অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ শাখা ।

 

রোবটিক্স নিয়ে জানতে হলে আমাদের আগে জানতে হবে রোবট নিয়ে । কারণ রোবটিক্স শাখার কর্ণধারই হচ্ছে এই রোবট ।

রোবট কী ?(What is Robot)

রোবট একটি যন্ত্রের । যকে কোন কাজ বা উদ্দেশ্যে প্রোগ্রাম করলে সে কাজটিকে সুন্দরভাবে সম্পন্ন করে । রোবোট (Robot) শব্দটার উৎপত্তি “Robota” মতান্তরে “roboti” শব্দ থেকে।রোবটিক্স শব্দটি ভেঙ্গে পড়লে পাওয়া যায় ‘রোবট’(Robot) আর ইক্স শব্দটার প্রবক্তা ছিলেন ক্যারেল ক্যাপেক, যিনি বিংশ শতাব্দীর শুরুর দিকে সাইন্স ফিকশন লেখার জন্য বিখ্যাত ছিলেন। রোবট শব্দটির উৎপত্তি চেক শব্দ ‘রোবোটা’ থেকে, যার অর্থ ফোরসড লেবার বা মানুষের দাসত্ব কিংবা একঘেয়েমি খাটুনি বা পরিশ্রম করতে পারে এমন যন্ত্র।

রোবট হলো কম্পিউটার নিয়ন্ত্রিত একটি স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থা, যা মানুষ যেভাবে কাজ করে ঠিক সেই ভাবেই কাজ করতে পারে অথবা এর কাজের ধরণ দেখে মনে হবে এর কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা আছে। রোবটের বহুমাত্রিক সংজ্ঞা দেয়া সম্ভব। সহজ ভাষায় বলা যায়, যে যন্ত্র নিজে নিজে মানুষের কাজে সাহায্য করে এবং নানাবিধ কাজে মানুষের বিকল্প হিসেবে ব্যবহৃত হয়, তাই রোবট।

রোবটের ধর্ম :

  1. প্রাকৃতিক নয়, কৃত্রিম
  2. পরিবেশ অনুভব করার ক্ষমতা আছে।
  3. পরিবেশের বস্তু নিয়ে কাজ করতে পারে।
  4. কিছুটা বুদ্ধিমত্তা আছে, যার সাহায্যে পরিবেশ বুঝে সিদ্ধান্ত নিতে পারে।
  5. কম্পিউটারের মাধ্যমে প্রোগ্রামযোগ্য।
  6. ঘুরতে পারে ও স্থানান্তর করতে পারে।
  7. দক্ষভাবে সুনিয়ন্ত্রিত চলন প্রদর্শন করতে পারে।
  8. স্বেচ্ছায় কাজ করছে, এরকম আভাস দিতে পারে।

রোবট এর প্রকারভেদ :

  1. Pre-Programmed Robots.
  2. Autonomous Robots.
  3. Teleoperated Robots.
  4. Augmenting Robots.

.Pre-Programmed Robots :

Pre-Programmed Robot গুলো সাধারণত নির্দিষ্ট একটি কাজে নিয়োজিত থাকে ।

যেমন কিছু রোবট আছে যেগুলো শুধু গাড়ির যন্ত্র লাগানোর কাজ করে ।কিছু রোবট আছে শুধু গাড়ির রঙের কাজ করে ।আমাদের সবার পরিচিত ‘লাইন ফলোয়ার’ রোবট একটি Pre-Programmed Robot ।

২. Autonomous Robots :

Autonomous Robots সাধারণত ইন্ড্রাস্ট্রিয়াল বা শিল্পক্ষেএে ব্যাবহার করা হয় । যেমন কোন বস্তু ওঠানোর জন্য,কোন বস্তুকে একজায়গা থেকে অন্য জায়গায়

পাঠানোর জন্য । MIT(Massachusetts Institute of Technology) এর তৈরি করা MIT CHEETAH একটি Autonomous Robot । এই MIT CHEETAH রোবটটি ঘন্টার ১০ মাইল দৌড়াতে সক্ষম ।

MIT CHEETAH

৩. Teleoperated Robots :

Teleoperated Robots সাধারনত মানুষের দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয়ে থাকে । যেমন বর্তমান একটি জনপ্রিয় রোবট হচ্ছে

রিমোট কন্ট্রোল ড্রোন । এটি এক প্রকার Teleoperated Robot ।

. Augmenting Robots :

Augmenting Robots গুলো সরাসরি হিউম্যানবডির সাথে সম্পর্কযুক্ত । যে সকল রোবট সরাসরি হিউম্যান পার্টস যেমন হাত(Hand)বা মাথা(Head) দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয়,সে সকল রোবটকে বলা হয় Augmenting Robots